নারীরা সামলাচ্ছেন হবিগঞ্জের প্রশাসন

একটা সময় ছিল, যখন চাকরির ক্ষেত্রে নারীদের অবস্থান শুধুমাত্র শিক্ষকতাতেই সীমাবদ্ধ ছিল। কিন্তু এখন আর পূর্বের অবস্থা নেই। সময়ের পরিবর্তন ও নারী ক্ষমতায়নের ফলে সকল ক্ষেত্রেই নারীরা এখন পুরুষের সঙ্গে তাল মিলিয়ে দেশ গড়ার কাজে নিয়োজিত রয়েছেন। বিভিন্ন আইনশৃঙ্খলা বাহিনী থেকে শুরু করে জেলা উপজেলার প্রশাসনের গুরুদায়িত্ব পালন করছেন তারা।

হবিগঞ্জের প্রশাসনিক কাঠামোর দিকে দৃষ্টি দিলেই স্পষ্ট হবে নারীর ক্ষমতায়ন ও কর্মদক্ষতার পরিচয়। জেলা প্রশাসন ও উপজেলা প্রশাসনে মোট ১০ জন নারী সফলতার সাথে দায়িত্ব পালন করছেন দীর্ঘদিন ধরে। এর মধ্যে নয় উপজেলার পাঁচটিতেই নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) দায়িত্ব পালন করছেন নারী। এছাড়া জেলা প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ণ পদে রয়েছেন ৫ জন।

উপজেলা প্রশাসনের মধ্যে রয়েছেন- লাখাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সঞ্চিতা কর্মকার, শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সুমী আক্তার, বাহুবল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) স্নিগ্ধা তালুকদার, আজমিরিগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাঈমা খন্দকার ও মাধবপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) তাসনুভা নাসতারান।

জেলা প্রশাসনে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) দায়িত্ব পালন করছেন মর্জিনা আক্তার, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট উম্মে ইসরাত, সহকারী কমিশনার ইফফাত আরা জামান উর্মি, সহকারী কমিশনার (সাধারণ শাখা, পর্যটন সেল) আফিয়া আমীন পাপ্পা ও সহকারী কমিশনার আমেনা খাতুন।

তারা যে শুধু দায়িত্ব পালন করছেন তা নয়। নিজেদের কর্মদক্ষতায় ইতিমধ্যে প্রশংসা কুড়িয়েছেন সর্বমহলে। প্রশাসন থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষের কাছে মূল্যায়ন পেয়েছে তাদের শ্রম, মেধা ও সততা। বলতে গেলে নারীতেই সমৃদ্ধ হবিগঞ্জের প্রশাসন।