গ্রামীণফোন ছাড়ার আবেদনের হিরিক

গ্রামীণফোন ছাড়ার আবেদনের হিরিক । নম্বর বদল না করে অপারেটর পরিবর্তনসেবা তথা মোবাইল নম্বর পোর্টেবিলিটি (এমএনপি) চালুর পর প্রথম পাঁচ দিনে গ্রামীণফোনের গ্রাহকরা বেশি অপারেটর বদল করেছেন। আর  অন্য অপারেটর ছেড়ে বেশি গ্রাহক এসেছে রবিতে। এই সেবা চালু হয় ১ অক্টোবর। মঙ্গলবার (৯ অক্টোবর) টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিটিআরসি প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানা গেছে। 

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১ থেকে ৫ অক্টোবর পর্যন্ত অপারেটর বদলের জন্য আবেদন জমা পড়ে ১০ হজার ১২২টি। এর মধ্যে চার হাজার ১৮১ জন গ্রাহক অপারেটর বদল করতে সক্ষম হয়েছেন। আর কারিগরি ক্রটিসহ অন্যান্য কারণে আবেদন বাতিল হয়েছে পাঁচ হাজার ৮৬২ জনের।

জানা গেছে, গ্রামীণফোনের চার হাজার ৬১৬ জন গ্রাহক অপারেটর বদলের আবেদন করেন। গ্রামীণফোন থেকে সবচেয়ে বেশি গ্রাহক রবিতে যাওয়ার জন্য আবেদন করে। গ্রামীণফোন থেকে বাংলালিংকে আবেদন করেছেন এক হাজার ২৪১ জন। টেলিটকের ৭০৯ জন গ্রাহক অপারেটর বদলের জন্য আবেদন করেন।

আরও জানা গেছে, রবির কাছে পাঁচ দিনে আবেদন এসেছে পাঁচ হাজার ৮৯১ জনের। এর মধ্যে সফল হয়েছেন দুই হাজার ৩৪১ জন। আর তিন হাজার ৫৫০ জনের আবেদন বাতিল হয়েছে।

 

আরো পড়ুনঃ গ্রাহক হয়রানিতে শীর্ষে গ্রামীণফোন