মাওলানা আতিক উল্লাহ গ্রেফতার

নিখোঁজ আলেম লেখক মাওলানা আতিকউল্লাহকে গ্রেপ্তার দেখিয়েছি র‍্যাব।

শনিবার বিকেলে র‌্যাব-১১ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আলেপ উদ্দিনের পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে মাওলানা আতিকউল্লাহকে গ্রেপ্তারের তথ্য জানানো হয়।

শুক্রবার দিবাগত রাত দিকে নরসিংদীর মাধবদী উপজেলার ছোট গদইচর এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করে র‌্যাব-১১ এর সদস্যরা। এ সময় তার কাছ থেকে বেশকিছু উগ্রবাদী বই, লিফলেট, ল্যাপটপ ও হার্ডডিস্ক উদ্ধার করা হয়েছে।

গ্রেফতার আতিক উল্যাহ ঢাকার একটি মাদরাসায় শিক্ষকতা করেন। ফতুল্লা থানায় র‌্যাবের দায়ের করা সন্ত্রাসবিরোধী একটি মামলার পলাতক আসামি তিনি।

শনিবার বিকেলে র‌্যাব-১১ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আলেপ উদ্দিনের পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে র‌্যাবের ওই কর্মকর্তা জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ ও অনুসন্ধানে জানা গেছে, হাফেজ মাওলানা মো. আতিক উল্যাহ নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন জামাআতুল মুজাহিদীন বাংলাদেশের (জেএমবি) একজন ফতোয়া নির্ধারক ও দাওয়াতি শাখার সমন্বয়কারী। তিনি ১৯৯৯ সাল থেকে ২০০৩ সাল পর্যন্ত নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন হারকাতুল জিহাদের (হুুজি) দেশব্যাপী বিভিন্ন কার্যক্রমে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেন। ওই সময় তিনি হুজি নেতা আব্দুর রহমান এবং সম্প্রতি ঢাকায় গ্রেফতার আফগান ফেরত মুজাহিদ আতিকুল্লাহর কাছে প্রশিক্ষণ গ্রহণ করেন। পরে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অভিযানে (২০১৪ সালে) নিহত এক জেএমবি নেতার মাধ্যমে জেএমবিতে যোগদান করেন।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানানো হয়, আতিক উল্যাহ মূলত ফেসবুক, টুইটার ও টেলিগ্রামের মাধ্যমে সাংগঠনিক কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছিলেন।