র‍্যাব-১ এর সহকারি পরিচালক হলেন বৃন্দাবন কলেজের সাবেক শিক্ষক

র‍্যাব-১ এর সহকারি পরিচালক হলেন বৃন্দাবন কলেজের ইংরেজি বিভাগের সাবেক শিক্ষক
ছবিতেঃ নোমান আহমদ।

বৃহত্তর সিলেট বিভাগের মেধাবী তরুণদের অগ্রসেনানী নাম যার নোমান আহমদ। ছাত্র-শিক্ষক, অগ্রজ-অনুজ সকলের কাছে গ্রহণযোগ্য প্রতিভাদীপ্ত এক তরুণ। 

গত ৩ মে রবিবার এলিট ফোর্স র‍্যাব-১ এর সহকারি পরিচালক পদে যোগদান করেন তিনি।

৩৬ তম বিসিএস উত্তীর্ণ এ চৌকস পুলিশ কর্মকর্তা শিক্ষাজীবনের প্রতিটি স্তরে মেধার সাক্ষর রেখেছেন। একই সাথে স্বীয় চরিত্র মাধুর্য ও প্রাণচাঞ্চল্যে ছাত্র শিক্ষক, সতীর্থসহ  সকলের মন জয় করতে সক্ষম হয়েছেন।

তিনি হজরত শাহজালাল দারুচ্ছুন্নাহ ইয়াকুবিয়া কামিল মাদ্রাসা সিলেট হতে দাখিল থেকে কামিল পাশ করেন।

আবার সিলেটের সর্বোচ্চ বিদ্যাপিঠ শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগ হতে অনার্স-মাস্টার্স সম্পন্ন করেন। উভয় পরীক্ষায় অসামান্য কৃতিত্বের স্বাক্ষর রেখে প্রথম শ্রেণিতে প্রথম স্থান অধিকার করেন তিনি।

নোমান আহমদ নর্থ ইস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ে ইংরেজি বিভাগের লেকচারার হিসেবে যোগদানের মাধ্যমে কর্মজীবন শুরু করেন। ২০১৪ সালের ফেব্রুয়ারি হতে ২০১৭ সালের এপ্রিল পর্যন্ত প্রায় তিন বছর এখানে শিক্ষকতা করেন। তিনি অসংখ্য ছাত্র-ছাত্রীর প্রিয় শিক্ষক এবং মেন্টরে পরিণত হন।

নর্থ ইস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রভাষক থাকা অবস্থায়ই ৩৫ তম বিসিএস সাধারণ শিক্ষা ক্যাডারে উত্তীর্ণ হয়ে মে ২০১৭ এ বৃন্দাবন সরকারি কলেজ, হবিগঞ্জে ইংরেজি প্রভাষক পদে যোগদান করেন।

বছর পেরুতেই প্রকাশ হয় ৩৬তম বিসিএস এর ফলাফল। ৩৬ তম বিসিএস এ পুলিশ ক্যাডারে উত্তীর্ণ হয়ে সহকারী পুলিশ সুপার হিসেবে যোগদান করেন ২০১৮ সালের ৩ সেপ্টেম্বর।

বাংলাদেশ পুলিশ একাডেমি সারদায় এক বছরের মৌলিক প্রশিক্ষণ শেষে ০৬ মাসের বাস্তব প্রশিক্ষণের জন্য যোগদান করেন পুলিশ সুপারের কার্যালয়, ফরিদপুরে। ০৬ মাসের বাস্তব প্রশিক্ষণ সমাপ্ত করে সহকারী পরিচালক হিসেবে এলিট ফোর্স র‍্যাব-১ এ যোগদান করেন গত ৩ মে রবিবার।

নোমান আহমদের পৈত্রিক নিবাস সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার দেওকলস ইউনিয়নের কামালপুর গ্রামে। তাঁর গর্বিত পিতা মো. আবদুর রব এবং মাতা শাহিনা আক্তার।